মুসলিম নভোচারীর জন্য মহাকাশে যাবে ‘হালাল খাবার’

মুসলিম নভোচারীর জন্য মহাকাশে হালাল খাবার সরবরাহ করবে রাশিয়ার একটি কোম্পানি। এ নভোচারীর নাম হাজ্জা আল-মানসুরি। তিনি সংযুক্ত আরব আমিরাতের নাগরিক। সেপ্টেম্বরের শেষ দিকে মহাকাশযানে চড়ে তিনি মহাকাশে যাওয়ার কথা। খবর রাশিয়ান সংবাদমাধ্যম স্পুটনিকনিউজ.কমের।

হাজ্জা আল-মানসুরির কাজে স্বাভাবিকতা থাকতে এবং স্বাস্থ্যগত কোনো ধরনের অসুবিধা না হতে ‘স্পেস ফুড ল্যাবর‌াটোরি’ (Space Food Laboratory) নামক একটি কোম্পানি মহাকাশের উপযুক্ত করে বিভিন্ন রকমের হালাল খাবার সরবরাহ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। মানসুরিরর জন্য তারা খাবারগুলো যথাসময়ে আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনে পাঠাবে।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের একজন নাগরিককে আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনে পাঠানোর ব্যাপারে ২০১৮ সালে রাশিয়ার সঙ্গে চুক্তি করে আমিরাত। চুক্তিপত্র চূড়ান্ত হওয়ার পর থেকে আমিরাতের হাজ্জা আল-মানসুরি ও সুলতান নিয়াদি মহাকাশে যাত্রার জন্য বিভিন্ন ধরনের প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ নেন। তবে প্রশিক্ষণ শেষে মহাকাশে যাওয়ার জন্য হাজ্জা আল-মানসুরি নির্বাচিত হন।

হাজ্জা আল-মানসুরি রুশ নভোচারী ওলেগ স্ক্রিপোককা ও মার্কিন নভোচারী জেসিকা মিরের সঙ্গে রাশিয়ান সোয়েজ এমএস-১৫ মহাকাশযানে চড়ে মহাকাশে যাবেন। সেখানে তারা কয়েকটি বৈজ্ঞানিক পরীক্ষা চালাবেন।

এক নাগাদে আট দিন আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনে থেকে ০৩ অক্টোবর আল-মানসুরির পৃথিবীতে ফিরে আসার কথা রয়েছে।

Add a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *